Home / BCS Tips / BCS preparation in a short time

BCS preparation in a short time

অল্প সময়ের দ্রুত প্রস্তুতি (প্রসঙ্গঃ প্রিলি)
(সতর্কবাণীঃ সময় যাদের কম, তাদের জন্য ফাঁকিবাজি প্রস্তুতি)
:
বিশ্লেষণ ও প্রণয়নেঃ সত্যজিৎ চক্রবর্ত্তী
[ Satyajit Chakraborty ]
________________
যারা দীর্ঘদিন ধরে প্রস্তুতি নিচ্ছেন কিংবা যারা প্রচুর সময় দিয়ে পড়তে পারেন, তারা এ লেখাটি পড়বেন না। এ লেখাটি শুধু তাদের জন্য যারা চাকরির পাশাপাশি প্রস্তুতি নিচ্ছে বা মাস্টার্সের পাশাপাশি প্রস্তুতি নিচ্ছেন কিংবা যারা প্রস্তুতি নেওয়ার জন্য পর্যাপ্ত সময় পাননি।
:
যদি আপনি চাকরিজীবী, মাস্টার্সে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থী বা কম সময় পাওয়া প্রার্থী হোন, তবে যদি আপনি ভেবে থাকেন এই প্রস্তুতি দিয়ে প্রিলিতে কোয়ালিফাই হওয়া যাবেনা, তবে আপনাকেই বলছি হতাশ না হয়ে কিছু বিশেষ কৌশলে প্রস্তুতি নিন। পরীক্ষা দেওয়ার আগেই আপনি কিভাবে নিশ্চিত হলেন যে আপনি টিকবেন না? যেহেতু আপনার সময় কম সুতরাং আপনি পড়াটাকে কিছুটা শর্টকাট করুন। যারা প্রচুর সময় দিয়ে পড়ছে তাদের দেখে আফসোস না করে স্বল্প সময়ে নিজের প্রস্তুতি একটু হলেও নেয়ার চেষ্টা করুন।
:
কী কী পড়বেন? গণিত ও ইংরেজি গ্রামার নিয়মিত করুন। সাথে সর্বোচ্চ সময়টুকু দিয়ে বাংলা ব্যাকরণ শেষ করুন। প্রশ্ন সহজ কঠিন যাই হোক এই ৩টা টপিকে নিয়মের বাইরে প্রশ্ন হবে না। অর্থাৎ নিয়ম জানা থাকলে গ্রামার ও অংকে অনেক মার্কস আনতে পারবেন। বিজ্ঞান, ইংরেজি সাহিত্য ও মানসিক দক্ষতা শুধু বিগত বছরের প্রশ্নগুলো পড়ুন। বাংলা সাহিত্যে প্রাচীন ও মধ্যযুগ ভাল করে পড়ুন,কারণ এ অংশ থেকে পড়লেই কমন পাবেন। সাথে ১১ জন নির্দিষ্ট কবি সাহিত্যিক ও গুরুত্বপূর্ণ আরো কয়েকজন কবি সাহিত্যিকের (যাদের প্রশ্ন বেশি বেশি আসে) তাদের গুলো ভাল করে দেখেনিন। অন্যদের মত যেহেতু ১০০+ কবি লেখকের সব মুখস্থ করার সময় নেই, তাই এই কাজটিই স্বল্প সময়ে করুন। গুরুত্বপূর্ণ সাহিত্যিকদের নাম জানা না থাকলে আমার পুর্বে প্রকাশিত “প্রিলির গুরুত্বপূর্ণ সাহিত্যিকের তালিকাঃ সত্যজিৎ চক্রবর্ত্তী ” নাম ও শিরোনামে লেখাটা দেখে নিবেন।
:
কম্পিউটার অংশটি শুধু ডাইজেস্ট থেকেই পড়লে হবে। বাংলাদেশ বিষয়াবলিতে – প্রাচীন কাল হতে সমসাময়িক ইতিহাস টপিকটা পড়ার দরকার নেই; কারণ এই একটি টপিক শেষ করতে আপনার এক সপ্তাহ বা তার বেশি সময় লাগতে পারে কিন্তু মার্কস ১বা ২। সংবিধান ভাল করে পড়লে ১ দিনেই পুরো টপিক শেষ করতে পারবেন এবং নিশ্চিতভাবেই আপনার পড়া অংশ থেকেই আসবে। সাহায্য নিতে “সংবিধানের পূর্ন প্রস্তুতিঃ সত্যজিৎ চক্রবর্ত্তী ” নাম ও শিরোনামে প্রকাশিত লেখাটির। এভাবে সাধারণ জ্ঞানের বিভিন্ন টপিক শেষ করুন। সাধারণ জ্ঞান পড়া থাকলে ভুগোল না পড়লেও চলবে। নৈতিকতা, মুল্যবোধ ও সুশাসন এর জন্য পড়া মানেই আপনার সময় নষ্ট করা হবে, তাই এটিও পড়বেন না। আর।অবশ্যই জব সলিউশন পড়তে যেন ভুল না হয়। এভাবে প্রস্তুতি নিলে হয়তো প্রিলির ভাগ্যটা আপনার হতাশা থেকে সাফল্যের দিকেও মোড় নিতে পারে। পরীক্ষার ২০ দিন আগে আপনার ব্যস্ততা কমিয়ে অন্তত একটা ডাইজেস্ট শেষ করার চেষ্টা করবেন।
:
পরীক্ষায় কিছু ভোকাবুলারি আসে। তাই বলে আপনি ভোকাবুলারি মুখস্থ করতে বসবেন না। কারণ ১হাজার ভোকাবুলারি শিখে আপনি একটাও কমন না পেতে পারেন। কিন্তু ঐ সময়ে যদি আপনি জব সলিউশন পড়েন তবে নিশ্চিত করেই বলছি আপনি কিছু প্রশ্ন হলেও কমন পাবেন।
:
সতর্কীকরণঃ আগেই বলেছি এটি শুধু তাদের জন্য যাদের সময় কম। তবে যাদের পর্যাপ্ত সময় আছে তারা এ নিয়ম না মেনে সব বিস্তারিত পড়ে যান।
_________________
‪#‎Written_By‬:
Satyajit Chakraborty
Ex-president,
Social Law Awareness Association.

[X]
Loading...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *