Home / News / সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে পবিত্র কাবা শরীফকে ব্যঙ্গ করে পোষ্ট করায় রসরাজ দাস নামের এক হিন্দু যুবককে এলাকাবাসী আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে।শনিবার (২৯ অক্টোবর) বিকালে উপজেলার হরিপুর থেকে আটক করে পুলিশ। রসুদাস উপজেলার হরিপুর ইউনিয়নের হরিণবেড় গ্রামের জগন্নাথ দাসের ছেলে। তাকে আটকের পর থেকে এলাকাবাসী প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল করেছে।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, রসরাজ দাস পবিত্র কাবা শরীফকে ব্যঙ্গ করে শনিবার সকালে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে তার টাইম লাইনে ছড়িয়ে দেয়। এখবর ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়ার পর এলাকাবাসীর মধ্যে উত্তেজনা সৃষ্টি হয়। পরে স্থানীয়রা রসরাজ দাসকে ধরে হরিপুর ইউনিয়ন পরিষদে নিয়ে পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ইউনিয়ন পরিষদে পৌঁছে রসদাসকে আটক করে। এর আগে সরদাসের আইডি থেকে ছড়িয়ে পড়া পোষ্টটি মুছে ফেলা হয়। পোষ্টটি তার আইডি ব্যবহার করে অন্য কেউ করেছে বলে উল্লেখ করে সে সকল মুসলমানদের কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করে আরেকটি পোষ্ট করেন।

এদিকে কাবা শরীফকে ব্যঙ্গ করে অবমাননার পোষ্ট দেয়ার প্রতিবাদে ও রসদাসের দৃষ্ঠান্তমূলক বিচারের দাবিতে দাবিতে শনিবার সন্ধ্যায় নাসিরনগরের মুসলিম জনতা নাসিরনগর-সরাইল সড়কে কলেজ চত্বরে টায়ার জ্বালিয়ে যান চলাচল বন্ধ করে দেয়। পরে উপজেলা সদর থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করে। বিক্ষোভ শেষে স্থানীয় শহীদ মিনার চত্বরে প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশে বক্তারা কাবা শরীফকে ব্যঙ্গ করে অবমাননাকারী রসরাজের ফাঁসির দাবি জানান।

নাসিরনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল কাদের জানান, রসদাসের বিরুদ্ধে তথ্য প্রযুক্তি আইনে মামলা নেয়া হয়েছে। তাকে আদালতের মাধ্যমে হাজতে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে। তাকে নিয়ে এলাকায় কিছুটা উত্তেজনা ছিল তা এখন কেটে গেছে।

[X]
Loading...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *